ঢাকা, ১৩ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
shodagor.com

আসমানী এখন ভাইরাল

প্রকাশিত: শনিবার, অক্টোবর ১০, ২০২০ ১:৪৬ অপরাহ্ণ  

| ডেস্ক ইডিটর, ‍আসিফ

এতদিন যেন ভাঁজে মোড়ানো ছিল স্লোগান কন্যার হয়ে ওঠার গল্প। ধর্ষণবিরোধী আন্দোলনের মাধ্যমে সম্প্রতি তা খুলল। প্রথম গল্পটা ৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৩ সালের। ‘তুই রাজাকার, তুই রাজাকার’ স্লোগানে হঠাৎই সেদিন ‘অগ্নিকন্যা’ খ্যাতি বনে গিয়েছিলেন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের ছাত্রী ও ছাত্র ইউনিয়ন নেত্রী লাকী আক্তার। এরপর ৭ বছরেরও বেশি সময় পার হয়েছে। রাজনৈতিক উত্থান-পতন হয়েছে নানাভাবে, নানা রকমে। তবে স্লোগান কন্যা হওয়ার গল্পটি যেন সেই আগের মতই রয়ে গেছে।

ফ্রন্টলাইনে এবার ভাইরাল আসমানী আশা। সেই জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী, সেই ছাত্র ইউনিয়নের নেত্রী। ধর্ষণবিরোধী আন্দোলনে সম্প্রতি শাহবাগে শুরু হওয়া আন্দোলনে তার স্লোগান ইতোমধ্যেই সবার নজর কেড়েছে। জানা যায়, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের নৃবিজ্ঞান বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী আসমানী আশা। বিশ্ববিদ্যালয়টির শাখা ছাত্র ইউনিয়নের শিক্ষা ও গবেষণা সম্পাদক তিনি। গ্রামের বাড়ি গাইবান্ধা জেলায়। আশা জানান, রাজনীতির দীক্ষা পারিবারিকভাবেই পেয়েছেন তিনি। এগিয়ে যেতে চান আরো বহুদূর।

ধর্ষণবিরোধী আন্দোলন শুরু হওয়ার পর গত মঙ্গলবার পুলিশি হামলার শিকার হয়েছিলেন আশা। আঘাত পেয়েছেন পেটে-হাতে। তাতে দমে যাননি আশা। ব্যান্ডেজসহ ভাঙা হাত নিয়ে নিয়মিত আসছেন শাহবাগের আন্দোলনে। দিচ্ছেন ধর্ষণবিরোধী স্লোগান। আশার ক্ষোভ, ধর্ষণবিরোধী মিছিলে পুলিশ কেন আমাদের গায়ে হাত তুলবে, লাঠিচার্জ করবে? তিনি বলেন, আমার ওপর লাঠিচার্জ করা হয়েছে। এক পুরুষ পুলিশ সদস্য আমার গায়ে পর্যন্ত হাত তুলেছেন, পেটে ঘুষি মেরেছেন। আমরা তো ধর্ষণের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করছি, পুলিশ কেন লাঠিচার্জ করছে- প্রশ্ন আশার।

আসমানী আশা মনে করেন, ধর্ষণের মূল কারণ বিচারহীনতার সংস্কৃতি। যার পেছনে গোটা রাষ্ট্রব্যবস্থা জড়িত। তার ভাষ্য, ধর্ষণের জন্য মানসিকতা জড়িত। নারীর পোশাক নয়। ধর্ষণের শাস্তি হিসেবে ফাঁসির রায় কার্যকর হওয়া উচিত বলেও মনে করেন ছাত্র রাজনীতির এই কর্মী।

Share this...
Share on Facebook
Facebook
Tweet about this on Twitter
Twitter

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস ও মতামত কলামে লিখতে পারেন আপনিও – pbn.news24@gmail.com ইমেইল করুন  

সর্বশেষ

জনপ্রিয় সংবাদ